ঢাকাশুক্রবার , ২৯ জুলাই ২০২২
  1. Covid-19
  2. অপরাধ ও আদালত
  3. অর্থনীতি
  4. আন্তর্জাতিক
  5. ইসলাম ডেস্ক
  6. কৃষি ও অর্থনীতি
  7. খেলাধুলা
  8. জাতীয়
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. দেশজুড়ে
  11. নির্বাচন
  12. বানিজ্য
  13. বিনোদন
  14. ভিডিও গ্যালারী
  15. মুক্ত মতামত ও বিবিধ কথা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ছয় বছরের ছাত্রীকে ধর্ষণ, মাদরাসার শিক্ষিকার স্বামী গ্রেফতার

প্রতিবেদক
প্রতিদিনের বাংলাদেশ
জুলাই ২৯, ২০২২ ১১:৫৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নিজস্ব প্রতিবেদক | ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে ছয় বছর বয়সী মাদরাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি মো. আবদুল মঞ্জুকে (৪০) গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১০। মঞ্জু ওই মাদরাসার শিক্ষিকার স্বামী।

শুক্রবার (২৯ জুলাই) রাজধানীর কাফরুল এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‍্যাব-১০ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) সহকারী পুলিশ সুপার এনায়েত কবির সোয়েব।

তিনি বলেন, কেরানীগঞ্জ এলাকায় ভুক্তভোগী শিশুটি একটি ভাড়া বাসায় মা-বাবার সঙ্গে থাকতো। শিশুটির মা-বাবা তাকে স্থানীয় একটি মহিলা মাদরাসায় কেজি শ্রেণিতে ভর্তি করেন। গত ১৬ জুলাই সকাল ৮টায় প্রতিদিনের মতো শিশুটির মা তাকে মাদরাসায় দিয়ে বাসায় চলে আসেন। সকাল ১০টা ২৫ মিনিটে টিফিন খাওয়ানোর জন্য তিনি আবার মাদরাসায় যান। ওই সময় শিশুটির মা মাদরাসায় গিয়ে দেখেন ক্লাসের শিক্ষিকা ও সব ছাত্রীরা টিফিনের জন্য বাসায় চলে গেছে এবং তার মেয়ে ক্লাসে নেই। খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে মেয়ের চিৎকার শুনে মাদরাসার কেবিনে সামনে গিয়ে তিনি দেখতে পান তার মেয়েকে ধর্ষণ করছে মাদরাসার শিক্ষিকার স্বামী মো. আবদুল মঞ্জু।

এনায়েত কবির বলেন, মাকে দেখে মঞ্জু শিশুটিকে ছেড়ে দৌড়ে পালিয়ে যান। পরে শিশুটির মা ভিকটিমকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে এ ঘটনায় কেরানীগঞ্জ মডেল থানায় মো. আবদুল মঞ্জুর বিরুদ্ধে মামলা করা হয়।

সহকারী পুলিশ সুপার আরও বলেন, এ ঘটনায় র‌্যাব-১০ এর একটি আভিযানিক দল অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতারে ছায়া তদন্ত শুরু করে। এরই ধারাবাহিকতায় রাজধানী কাফরুল থানার মিরপুর-১৩ এলাকায় অভিযান চালিয়ে আবদুল মঞ্জুকে গ্রেফতার করে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে, মঞ্জু ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। তাকে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন