ঢাকারবিবার , ১২ ডিসেম্বর ২০২১
  1. Covid-19
  2. অপরাধ ও আদালত
  3. অর্থনীতি
  4. আন্তর্জাতিক
  5. ইসলাম ডেস্ক
  6. কৃষি ও অর্থনীতি
  7. খেলাধুলা
  8. জাতীয়
  9. তথ্য-প্রযুক্তি
  10. দেশজুড়ে
  11. নির্বাচন
  12. বানিজ্য
  13. বিনোদন
  14. ভিডিও গ্যালারী
  15. মুক্ত মতামত ও বিবিধ কথা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

রসগোল্লার ভেতর শামুক! মুখে দিতেই কাটলো জিভ!

প্রতিবেদক
প্রতিদিনের বাংলাদেশ
ডিসেম্বর ১২, ২০২১ ৪:১২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

প্রতিদিনের বাংলাদেশঃ রসগোল্লা খেতে গিয়ে কেটে গেলো জিভ। শুনতে অস্বাভাবিক লাগলেও এমনই ঘটনা ঘটেছে ভারতের পূর্ব মেদিনীপুরের মহিষাদলে। এক সেনা সদস্যের বাড়িতে এই ঘটনা ঘটায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। খবর নিউজ এই সময়ের।

খবরে বলা হয়, মহিষাদলের রথতলা এলাকার বাসিন্দা এক সেনা সদস্যের প্রায় দিনই বাড়ির অদূরে শহিদ বেদি সংলগ্ন মিষ্টির দোকান থেকে মিষ্টি কেনেন। শুক্রবার সন্ধ্যাতেও তিনি রসগোল্লা কিনে বাড়িতে এনেছিলেন। শনিবার সকালে সেই রসগোল্লা খাওয়ার সময়ই ঘটলো বিপত্তি। সেনা-জওয়ানের ১৩ বছরের ছেলে শুভদীপ গিরি সেই রসগোল্লা খেতে গিয়ে ছানার ভেতরে মরা শামুকের খোল পেয়েছে।

শুভদীপ বলেন, সকালে কোচিং থেকে পড়ে এসে খেতে বসি। রসগোল্লা মুখে দিতেই শক্ত মতো কিছু জিভে ঠেকে। সঙ্গে সঙ্গে সেটি বের করে দেখি, ছোট্ট শামুক। এরপরই ওই পরিবারের মধ্যে রসগোল্লা নিয়ে আতঙ্ক ছড়ায়। যদিও সবকটি মিষ্টিতে শামুক বা শামুকের খোল মেলেনি। একটিতেই পাওয়া গিয়েছে।

শুভদীপের মা সুজাতা গিরি বলেন, গতকাল আমরা তিনটা রসগোল্লা খেয়েছি। কিছু হয়নি। আজ ছেলে একটা রসগোল্লা খেতে গিয়ে শামুকের খোল পেলো। আচমকা সেটি জিভে লাগায় ছেলের জিভের ভেতরেও খানিকটা কেটে গিয়েছে। কিন্তু রসগোল্লা নিয়ে এতোবড় কাণ্ড ঘটে গেলেও দোকানদার মানতে চাননি বলে অভিযোগ সুজাতাদেবীর। তিনি বলেন, রসগোল্লার ভেতর শামুকের খোল পাওয়ার ঘটনা দোকানদার কিছুতেই মানতে চাননি। কিন্তু সেই রসগোল্লা খেয়ে তো আমার ছেলের জিভের ভেতরটা কেটেও গিয়েছে। আমরা চাই, এই ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি যেনো না হয়।

ওই মিষ্টির দোকানের কারিগর স্বপন মাইতি রসগোল্লার ভেতর শামুকের খোল পাওয়ার দায় এড়িয়ে গিয়েছেন। ছানাওয়ালার উপরই এই ঘটনার দায় চাপিয়ে তিনি বলেন, রসগোল্লার ভেতর কীভাবে শামুকের খোল এলো তা বুঝতে পারছি না। আমরা পুকুরের পানি ব্যবহার করি না। কলের পানি ব্যবহার করা হয়। তবে ছানার মধ্যে এটা আসতে পারে।

আপনার মন্তব্য লিখুন